365 ত্রিপুরা ৩৬৫
মা আসছেন -32দিন পরে

www.booked.net
+32
°
C
+32°
+27°
Agartala
Tuesday, 08
See 7-Day Forecast

   
নিজের পদ ধরে রাখা আর দল ভারী করাই এখন সীতারামের লক্ষ্য
সংবাদ প্রতিদিন , 21/04/2018, হায়দরাবাদ

তিনদিনের লড়াই শেষে প্রথম জয় এসেছে। লড়াই যদিও সহজ ছিল না। প্রতিপক্ষকে জব্দ করতে প্রতিমূহূর্তে কৌশল বদল করতে হয়েছে। শেষ পর্যন্ত দুই রাজনৈতিক গুরুর শরণাপন্ন হতে হয়েছিল। দুই প্রাক্তন বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য ও ভিএস অচ্যুতানন্দনের সাহায্যও নিতে হয়েছিল সিপিএম সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরিকে। জোটপন্থীদের জয় হয়েছে। যদিও লড়াই এখনও শেষ হয়নি। শুক্রবার রাতে প্রথম লড়াই শেষ হতেই শুরু হয়েছে দ্বিতীয় লড়াই। প্রথমত নিজের পদ ধরে রাখা, দ্বিতীয়ত কেন্দ্রীয় কমিটিতে নিজের দল ভারী করা। সেখানেও বাধা প্রকাশ কারাট ও কেরল লবি। এখনও পর্যন্ত দুই কমিটিতেই সংখ্যাগুরু কারাট লবি। সংখ্যালঘু হয়ে পার্টি চালান যে কত কঠিন গত তিনবছরে হাড়েহাড়ে টের পেয়েছেন সীতারাম।এই লড়াইতেও তাঁর ভরসা বঙ্গ ব্রিগেড। বিমান বসু-সূর্যকান্ত মিশ্র ও গৌতম দেবরা। প্রতিপক্ষে প্রকাশ কারাটের সঙ্গে রয়েছেন তাঁর জায়া বৃন্দা কারাট ছাড়াও মানিক সরকার, কেরলের মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়ন ও বিভি রাঘবুলুরা। কারাট লবির বিজয়ন ছাড়া সকলেই চাইছেন সাধারন সম্পাদকের আসনের দখল নিতে। সবচেয়ে কঠিন প্রতিপক্ষ হয়ে উঠেছেন সদ্য প্রাক্তন হয়ে যাওয়া মানিক সরকার। যেনতেন প্রকারে সীতারামকে সরিয়ে সেই চেয়ারে তিনি বসতে চাইছেন বলে একে গোপালন ভবন সূত্রে খবর। সেই লক্ষ্য পুরণে প্রকাশের সাহায্য নিয়ে পার্টি কংগ্রেসের সভাপতির আসনে বসেছেন। পার্টি কংগ্রেসের বক্তাদের নিয়ন্ত্রণ করছেন তিনি। অভিযোগ উঠেছে পক্ষপাতিত্বের। পছন্দের বক্তাকে সময় বাড়িয়ে দিচ্ছেন অপছন্দের লোকের সময় কেটে। কিন্তু তার লক্ষ্য পূরণে সীতারাম জল ঢেলে দিয়েছে। জোট ইস্যুতে কারাট লবিকে পরাস্ত করতেই সাধারণ সম্পাদকের চেয়ার সীতারাম নিশ্চিত করে ফেলেছেন বলেই মনে করছে বঙ্গ ব্রিগেড। সেই সঙ্গে সিটুর শীর্ষনেতা তপন সেনকেও পলিটব্যুরোতে আনতে পারেন। এবার কেন্দ্রীয় কমিটিতে নিজের লোক ঢোকাতে ময়দানে নেমেছেন বলে খবর।এই রাজ্য থেকে শ্যামল চক্রবর্তী ও মদন ঘোষের বাদ যাওয়াটা এখন সময়ের অপেক্ষা। বাদ যাওয়ার তালিকায় রয়েছেন দীপক দাশগুপ্ত ও নৃপেণ চৌধুরিও। চারজন বাদ গেলে চারজনের অন্তর্ভুক্তি নিশ্চিত। সেক্ষেত্রে এমন সদস্যকে নিতে চাইছেন যারা ভবিষ্যতে যে কোনও সংকটে তাঁর পাশে দাঁড়াবে। বাম পরিষদীয় দলনেতা সুজন চক্রবর্তীর অন্তর্ভুক্তি প্রায় একশো শতাংশ নিশ্চিত। অশোক ভট্টাচার্যও কেন্দ্রীয় কমিটিতে জায়গা পেতে পারেন। আর দু’জন কারা তা আজ রাতে বসে ঠিক করবেন বিমান-সূর্যকান্তরা। দুই যুব নেতা, এক মহিলা ও এক প্রাক্তন জেলা সম্পাদকের নাম ঘোরাফেরা করছে ‘কল্যান মণ্ডপম’ এর অন্দরে।

   

  Comment With Us
* Name :  
* e-mail :  
  Address :  
* Comments :  
* 2+5=? :  
     
 

Posted comments
Till now there is no comments for this news.
 
 
© tripura365.in, Agartala 799 001, Tripura, INDIA.